ওসি প্রদীপ সিনহা হত্যায় ঘনিষ্টভাবে জড়িত থাকার প্রমাণ রয়েছে

যোগফল প্রতিবেদক

31 Aug, 2020 08:00am


ওসি প্রদীপ সিনহা হত্যায় ঘনিষ্টভাবে জড়িত থাকার প্রমাণ রয়েছে
ছবি : সংগৃহীত

মেজর (অব.) সিনহা মো. রাশেদ নিহত হওয়ার ঘটনায় টেকনাফ থানার বরখাস্ত হওয়া ওসি প্রদীপ ঘনিষ্টভাবে জড়িত বলে মন্তব্য করেছেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় গঠিত তদন্ত কমিটির প্রধান চট্টগ্রাম বিভাগের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ মিজানুর রহমান।

তিনি বলেন, সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন বক্তব্যে ওসি প্রদীপের সংশ্লিষ্টতার কথা উঠে এসেছে। তাই তার (ওসি প্রদীপের) জবানবন্দি নিয়ে তার দেওয়া তথ্য উপাত্ত বিশ্লেষণ করে তদন্ত রিপোর্ট জমা দেওয়া হবে।

সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ হত্যা মামলার ঘটনায় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় গঠিত তদন্ত কমিটির জরুরি সভা শেষে রোববার [৩০ আগস্ট ২০২০] কমিটির প্রধান চট্টগ্রাম বিভাগের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ মিজানুর রহমান সংক্ষিপ্ত ব্রিফিংএ এসব কথা বলেন।

ককসবাজার হিল ডাউন সার্কিট হাউসের সম্মেলন রুমে বেলা এগারোটায় শুরু হওয়া বৈঠক শেষ হয় সন্ধ্যা ছয়টায়। পরে গণমাধ্যমের সঙ্গে সংক্ষিপ্ত ব্রিফিং করেন কমিটির প্রধান।

মিজানুর রহমান আরও জানান, তদন্ত কমিটির মেয়াদ ৩১ আগস্ট শেষ হচ্ছে। ওই দিন আবার ওসি প্রদীপের র‌্যাবের রিমান্ড শেষ হবে। এ জন্য তদন্ত কমিটি রোববার সারাদিন বৈঠক করে। বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয় কমিটির মেয়াদ বাড়ানোর জন্য মন্ত্রণালয়ে আবেদন করার। তাই আমরা আরও কয়েকদিন সময় বৃদ্ধির জন্য মন্ত্রণালয়ে আবেদন করেছি। আশাকরি মন্ত্রণালয় সময় বৃদ্ধি করবে। আগামী ১ সেপ্টেম্বর ওসি প্রদীপের জবানবন্দি নিতে পারবো।

ব্রিফিং এ তিনি উল্লেখ করেন, কমিটি এ ঘটনায় সংশ্লিষ্ট ৬৭ জনের জবানবন্দি নিয়েছে। বেশিরভাগ বক্তব্যে ওঠে এসেছে ওসি প্রদীপ সিনহা হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় ঘনিষ্টভাবে জড়িত। তার জবানবন্দি নিয়ে তার দেওয়া তথ্য উপাত্ত বিশ্লেষণ করে তদন্ত রিপোর্ট তৈরি করতে হবে। এরমধ্যে তদন্ত রিপোর্ট অনেকটা গুছিয়ে আনা হয়েছে। তদন্ত শেষ পর্যায়ে রয়েছে। শুধু ওসি প্রদীপের জবানবন্দির অপেক্ষায়। ওসি প্রদীপ রিমান্ডে থাকায় আমরা দুইবার আদালতে আবেদন করেছি তার জবানবন্দি গ্রহণ করার জন্য। আদালত জানিয়েছে রিমান্ড শেষ হলেই তদন্ত কমিটি তার জবানবন্দি নিতে পারবে।


বিভাগ : তালাশ


এই বিভাগের আরও