ভবানীপুরে ভাড়াটিয়াকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে তিনজন গ্রেপ্তার

রোকুনুজ্জামান খান

12 Jan, 2021 07:41pm


ভবানীপুরে ভাড়াটিয়াকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে তিনজন গ্রেপ্তার
ছবি : সংগৃহীত

গাজীপুর সদর উপজেলায় ভাড়াটিয়া কিশোরীকে বাড়ির মালিকে ধর্ষণ চেষ্টার মামলায় তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে জয়দেবপুর থানা পুলিশ।

অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, চাকরির খোঁজে আসা ভুক্তভোগী কিশোরী গাজীপুর সদর উপজেলার ভৌরাঘাটা এলাকায় মৃত গন্দু সিকদারের সন্তান আলী সিকদারের (২৫) বাড়ির সদস্যদের অনুপস্থিতিতে ভুক্তভোগীকে বিভিন্ন কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিলো। আসামি আলীর কু-প্রস্তাবে রাজি না হলে চাকরি করতে দেবে না, এবং অন্য কোথাও ভাড়া থাকতে দেবেনা মর্মে ভুক্তভোগীকে হুমকি দিয়ে আসছিল।

তারই জের ধরে গত শনিবার (৯ জানুয়ারি ২০২১) রাত দশটা নাগাদ ভুক্তভোগীর ঘরে প্রবেশ করে বিভিন্ন ভয়ভীতি দেখিয়ে অবৈধ শারিরিক সম্পর্ক স্থাপনের প্রস্তাব দেয়। ভুক্তভোগী নানা ভাবে বোঝানোর চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। ভুক্তভোগীর ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর করে ধর্ষণের চেষ্টা করে। 

ভুক্তভোগীর চিৎকারে, আসামিদের ভয়ে আলি সিকদার তার বাড়ির আরও দুই ভাড়াটিয়াসহ মোট চারজনের সহায়তায় ভুক্তভোগীর গলা চেপে ধরে ধর্ষণের উদ্দেশ্যে মোটরসাইকেলে উঠিয়ে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পথে এক সাহসী কিশোরের (১৭) বাধার মুখে ভুক্তভোগী রক্ষা পায়। 

ভুক্তভোগী কিশোরী বিচার চাওয়ার চেষ্টা করলে আসামিরা ভুক্তভোগীকে খুন জখমের হুমকি। পরে এ ঘটনায়  ভুক্তভোগী ১০ জানুয়ারি চারজনকে আসামি করে জয়দেবপুর থানায় একটি ধর্ষণ চেষ্টার মামলা দায়ের করেন। 

আসামিরা হলেন, গাজীপুর সদর উপজেলার ভোরাঘাটা এলাকার মৃত গিন্দু সিকদার এর সন্তান আলি সিকদার (২৫), ভবানীপুর এলাকার ওমর ফারুকের  সন্তান জাহিদুল ইসলাম জাহিদ (২৪), জামালপুর জেলা মাদারগঞ্জ থানার দক্ষিণ চড় ভোলা গ্রামে আলম বেপারী সন্তান আবু বক্কর সীমান্ত (২০), ও নেত্রকোনা জেলার মোহনগঞ্জ থানার কুশুমা গ্রামে নিপেন্দ্র চন্দ্র দাশ সন্তান রাজন চন্দ্র দাশ (১৯)।

মামলার তদন্ত অফিসার এস.আই সাদিকুর রহমান ঘটনার সত্যতা পাওয়া মাত্রই ফোর্স নিয়ে অভিযান চালিয়ে তিন আসামিকে গ্রেপ্তার করেন। মামলার মূল আসামি অর্থাৎ বাড়ির মালিক আলি সিকদার এখনও পলাতক।

এ বিষয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মামুনুর রশিদ জানান, আমরা ধর্ষণের চেষ্টার ঘটনার বিষয়ে একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। প্রাথমিক পর্যায়ে ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে। ওই ঘটনা তদন্ত সাপেক্ষে ‘নারী ও শিশু নির্যাতন আইন (সংশোধনী) ২০০৩ এর ধর্ষণ চেষ্টা ও সহায়তা আইনে মামলায় তিনজনকে গ্রেপ্তার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে।


বিভাগ : অপরাধ


এই বিভাগের আরও